৩ প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির আবেদন শুরু

দেশের তিনটি প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের গুচ্ছ পদ্ধতির ভর্তির আবেদন আবেদন শুরু হয়েছে। চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (চুয়েট), খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (কুয়েট) এবং রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (রুয়েট) এই তিনটি বিশ্ববিদ্যালয় এবার গুচ্ছ পরীক্ষার আয়োজন করছে। এই তিন বিশ্ববিদ্যালয়ে স্নাতক ১ম বর্ষ (লেভেল-১) ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা একযোগে আগামী ১২ জুন অনুষ্ঠিত হবে।

আজ ২৪ এপ্রিল সকাল ৯টা থেকে অনলাইনে ভর্তি পরীক্ষার আবেদনপত্র গ্রহণ শুরু হয়েছে। আবেদনের শেষ সময় ৮ মে বিকাল ৫টা। https://www.admissionckruet.ac.bd/ লিংকের মাধ্যমে অনলাইনে আবেদন করা যাবে।

আগামী ২ জুন ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য যোগ্য প্রার্থীদের তালিকা প্রকাশ করা হবে। পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য আবেদনের যোগ্যতা ও অন্যান্য শর্তাবলি উপরোক্ত ওয়েবসাইট থেকে জানা যাবে।

তিন বিশ্ববিদ্যালয়ে সব মিলিয়ে মোট তিন হাজার ২০১ জন শিক্ষার্থী ভর্তি করা হবে। আবেদনকারীদের ‘ক’গ্রুপে ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগসমূহ এবং নগর উন্নয়ন ও পরিকল্পনা বিভাগে ৯০০ টাকা ফি দিয়ে প্রাথমিক আবেদন করতে হবে। আর ‘খ’গ্রুপে ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগসমূহ, নগর উন্নয়ন ও পরিকল্পনা এবং স্থাপত্য বিভাগের এক হাজার টাকা ফি দিয়ে আবেদন করতে হবে। এবার চুয়েটে সংরক্ষিত ১১টি আসনসহ মোট ৯০১টি, কুয়েটে সংরক্ষিত পাঁচটি আসনসহ ১ হাজার ৬৫ এবং রুয়েটে সংরক্ষিত পাঁচটিসহ ১ হাজার ২৩৫টি আসন রয়েছে। মেধা তালিকায় চুয়েটে ৮৯০টি, কুয়েটে ১ হাজার ৬০টি এবং রুয়েটে ১ হাজার ২৩৫টি আসন রয়েছে।

বুয়েটে আবেদনের শেষ দিন আজ : বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক ভর্তি পরীক্ষার আবেদন ১৫ এপ্রিল সকাল ১০টা থেকে শুরু হয়। অনলাইনে আজ ২৪ এপ্রিল বিকাল ৩টা পর্যন্ত ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীরা আবেদন করতে পারবে। মেধাবী শিক্ষার্থীদের বেছে নিতে এবার দুই ধাপে ভর্তি পরীক্ষা নেবে বুয়েট। যেটি অনুষ্ঠিত হবে ৩১ মে ও ১ জুন।

কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের শুরু ২ মে : দেশের সাতটি সরকারি কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে গুচ্ছ পদ্ধতিতে স্নাতক ভর্তি পরীক্ষার আবেদন আগামী ২ মে থেকে নেওয়া হবে। আর চলবে ১০ জুন পর্যন্ত। পরীক্ষা আগামী ৩১ জুলাই বেলা সাড়ে ১১টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত হবে। ফল প্রকাশ হবে ৫ আগস্ট। বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (শেকৃবি), চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি অ্যান্ড অ্যানিম্যাল সায়েন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়, সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, খুলনা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় এবং পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় এই গুচ্ছে অংশ নেবে।

২০ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষার আবেদনের সময় বৃদ্ধি : গুচ্ছে অংশ নেওয়া ২০টি সাধারণ এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের আবেদন প্রক্রিয়া চলছে। এই ভর্তি পরীক্ষার জন্য প্রাথমিক আবেদন গ্রহণ ১ এপ্রিল থেকে শুরু হয় এবং ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত জমা দেওয়ার সুযোগ ছিল। তবে মহামারি করোনা ভাইরাসের কারণে চলমান লকডাউন যেদিন শেষ হবে, তার থেকে ১০ দিন পর পর্যন্ত আবেদন করা যাবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here