সাবেক প্রধানমন্ত্রী, সোনিয়া গান্ধী, মমতার পরামর্শ চাইলেন মোদি

করোনা ভাইরাস সংক্রমণে ভারতে রাজনৈতিক ভেদাভেদ ভুলে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি সাবেক প্রেসিডেন্ট ও প্রধানমন্ত্রীদের পরামর্শ নিলেন। ব্যতিক্রম ঘটিয়ে তিনি কংগ্রেস আমলের প্রেসিডেন্ট প্রণব মুখার্জী, প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং এমনকি কংগ্রেস নেত্রী সোনিয়া গান্ধী, পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের পরামর্শ নিয়েছেন। এ ছাড়া তিনি কথা বলেছেন বিভিন্ন দলের রাজনৈতিক প্রধানদের সঙ্গে।

লকডাউনের ১২ দিন পেরিয়ে গেছে। আরও কতদিন চালিয়ে যাওয়া হবে তা নিয়ে নানা মত শোনা যাচ্ছে। এরই মধ্যে ভারতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে। রবিবার পর্যন্ত ভারতে আক্রান্তের সংখ্যা ৩৩৭৪।

গত ২৪ ঘন্টায় বেড়েছে ৪৭২ জন। এদিন পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে ৭৯ জনের। ২৬৮ জন সুস্থ হলেও সংক্রমণ কমার কোনও লক্ষ্মণ নেই।

এরকম পরিস্থিতিতে রবিবার ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি সাবেক প্রেসিডেন্ট প্রণব মুখোপাধ্যায় ও প্রতিভা প্যাটেল এবং সাবেক প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং ও এইচ ডি দেবেগৌড়ার সঙ্গে কথা বলেছেন।

জানা গেছে, করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় তাদের পরামর্শ চেয়েছেন তিনি। সাবেক প্রেসিডেন্ট ও প্রধানমন্ত্রীরা ছাড়াও মোদি এদিন কংগ্রেস সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী, পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, ওড়িষার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়ক, তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী কেসিআর সহ দেশের একাধিক মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে ফোনে আলোচনা করেছেন। সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, সমাজবাদী পার্টির নেতা অখিলেশ যাদব, ডিএমকে নেতা এম কে স্ট্যালিন, আকালি নেতা প্রকাশ সিং বাদলের সঙ্গেও মোদী আলোচনা করেছেন।

আজ সকালে বিজেপির সংসদীয় কমিটির নেতাদের সঙ্গে একপ্রস্থ কথা বলেছেন মোদী। ভারতজুড়ে লকডাউন ঘোষণার আগে দেশের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রী কোনও পরামর্শ না করায় প্রশ্ন উঠছে বিভিন্ন মহলে। যদিও সম্প্রতি মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সে মোদী লকডাউন থেকে বেরিয়ে আনার জন্য মুখ্যমন্ত্রীদের পরিকল্পনা জানাতে বলেছেন।

আগামী ৮ এপ্রিল সর্বদলীয় বৈঠকও করতে চলেছেন মোদী। জানা গেছে, দীর্ঘ লকডাউন নিয়ে ধৈর্য হারাচ্ছেন সাধারণ মানুষ। বিশেষ করে দিন আনা দিন খাওয়া মানুষজন প্রবল বিপাকে পড়েছেন।

আরও জানা গেছে, এরকম এক পরিস্থিতিতে লকডাউন তোলা বা তা আরও দীর্ঘ করা নিয়ে ওই বৈঠকে আলোচনা হতে পারে। আলোচনা হতে পারে করোনা চিকিৎসা সংক্রান্ত বিষয় নিয়েও। তবে এ নিয়ে কোনও পক্ষই কিছু প্রকাশ্যে বলেনি।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here