সংগ্রাম চালাতে গন চাঁদা উত্তোলন করছে নুরের নতুন দল

দলের কার্যক্রম শুরু করতে অভিনব উদ্যোগ নিয়েছে নুরুল হক নুর ও তার সহযোগীরা। নতুন দল তৈরি করতে চাই অর্থ। কিন্তু দলের নেতারা সবাই বেকার যুবক। তাই মানুষের থেকে চাঁদা তুলে রাজনৈতিক প্লাটফর্ম তৈরি করতে চান ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর । শুক্রবার রাতে এমনই এক সিদ্ধান্ত নিয়েছে তারা। প্রকাশ করা হয়েছে ‘গণ চাঁদা বিষয়ক বিজ্ঞপ্তি’।

ছাত্র অধিকার পরিষদের আহ্বায়ক মুহাম্মদ রাশেদ,যুব অধিকার পরিষদের আহ্বায়ক মুহাম্মাদ অাতাউল্লাহ এবং শ্রমিক অধিকার পরিষদের সদস্য সচিব মো: আরিফ হোসেন সাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিটি বাংলাদেশ ছাত্র, যুব ও শ্রমিক অধিকার পরিষদের নামে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ইতোমধ্যেই ছড়িয়ে দেয়া হয়েছে ।

গণ মানুষের অধিকার আদায়ের সংগ্রাম এবং দেশে গণতন্ত্র ও আইনের শাসন প্রতিষ্ঠার সংগ্রামকে সুসংগঠিত করার জন্য ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নুরের নেতৃত্ব তৈরি হতে যাওয়া নতুন রাজনৈতিক প্লাটফর্ম বাংলাদেশ গণ অধিকার পরিষদের জন্য চাঁদা চান তারা।তবে শুধু চাঁদাই নয়, সমর্থন এবং সহমর্মিতাও চাই নতুন এ রাজনৈতিক দলের।

দেশে এধরণের ঢালাওভাবে চাঁদা আদায়ের সংস্কৃতি না থাকলেও বিষয়টি ইতিবাচকভাবে দেখছেন ছাত্র অধিকার পরিষদের আহ্বায়ক মুহাম্মদ রাশেদ খান, তিনি স্টুডেন্ট জার্নালকে বলেন, “দেশের রাজনৈতিক দল গুলোর দল চালানোর ফান্ডিং অদৃশ্য, সে জায়গা থেকে বের হয়ে এসে আমরা জনগনের কাছে দায়বদ্ধ থাকতে চাই। আমরা সবাই মুটামুটি বেকার। আমরা নিজেরা উপার্জন করে দল করব সে সামর্থ্য আমাদের নাই “।

চাঁদা আদায়ে স্বচ্ছতার ব্যাপারে রাশেদ বলেন, “আমরা যে নম্বর দিয়েছি এবং ব্যাংক একাউন্ট নম্বর দিয়েছে সেগুলো থেকে প্রশাসন খুব সহজেই বুঝতে পারবে। কত টাকা আয় হলো এবং কত টাকা ব্যায় হলো, মাস শেষে আমরা তার হিসাব দিয়ে দিবো”।

বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে পাঁচটি বিকাশ নম্বর দুইটি রকেট, একটি নগদ এবং একটি ব্যাংক একাউন্টের মাধ্যমে চাঁদা চাওয়া হয়েছে। ইতোমধ্যে অনেকেই টাকা পাঠিয়ে তার স্কিন শর্ট ফেইসবুকে প্রকাশ করছে এবং সমর্থন জানান দিচ্ছে ।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here