রাবি ছাত্রীকে ধর্ষণ, বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের ৩ শিক্ষার্থীকে বহিষ্কার

ফাইল ছবি

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) এক ছাত্রীকে ধর্ষণ ও ভিডিও ধারণের ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের তিন শিক্ষার্থীকে সাময়িকভাবে বহিষ্কার করেছে বিশ্ববিদ্যায়য় কর্তৃপক্ষ।

গতকাল বুধবার বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার ড. মো. মহিউদ্দীন স্বাক্ষরিত এক অফিস আদেশে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়।

অভিযুক্তরা হলেন, আইন ও মানবাধিকার বিভাগের দ্বিতীয় সেমিস্টারের শিক্ষার্থী বায়েজিদ আহমেদ প্লাবন, ইকতিয়ার রহমান রাফসান ও রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের ৭ম সেমিস্টারের শিক্ষার্থী তারেক মাহমুদ জয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, অতি সম্প্রতি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন ছাত্রীর শ্লীলতাহানীর গুরুতর অভিযোগে মামলা হয়েছে। তা বিচারাধীন থাকার বিষয়টি গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে। উল্লিখিত ঘটনায় সম্পৃক্ত থাকার অভিযোগে বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের ওই তিন শিক্ষার্থীর ছাত্রত্ব সাময়িকভাবে বাতিল করা হলো।

বিষয়টি তদন্তে ইংরেজি বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক শহীদুর রহমানকে প্রধান করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন একটি কমিটি গঠন করে। কমিটি অভিযোগের সত্যতার বিষয়টি কর্তৃপক্ষকে নিশ্চিত করেন।

এর আগে, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ ও ভিডিও ধারণের ঘটনায় ভুক্তভোগীর করা মামলায় এক রাবি শিক্ষার্থীসহ পাঁচজনকে গ্রেফতার করা হয়। তাদের বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও পর্নোগ্রাফি মামলা করে ভুক্তভোগী ছাত্রী। এ ঘটনায় মূল আসামি রাবি শিক্ষার্থী মাহফুজুর রহমান শারুদকে দুইদিনের রিমান্ড শেষে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here