ব্রিজের রেলিং ভেঙে বোনের বাড়ি যাওয়ার রাস্তা বানালেন আ’লীগ নেতা

বোনের বাড়ি যাওয়ার রাস্তা তৈরি করার জন্য রাতের আঁধারে ব্রিজের রেলিং ভেঙে ফেলার অভিযোগ উঠেছে মির্জাপুর উপজেলার আনাইতারা ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক রেজাউল করিম ওরফে বাবু খানের বিরুদ্ধে।

গ্রামবাসী এ ঘটনার প্রতিবাদ করলে উল্টো হুমকি দেওয়ারও অভিযোগ উঠেছে ওই নেতার বিরুদ্ধে।

মঙ্গলবার (১ ডিসেম্বর) সরেজমিনে ওই এলাকায় গেলে স্থানীয়রা এ অভিযোগ করেন।

উপজেলা প্রকৌশল অফিস সূত্র জানায়, ২০০২-২০০৩ অর্থ বছরে চরবিলসা গ্রামের খালের ওপর ২০ মিটার দৈর্ঘ্য একটি ফুট ব্রিজ নির্মাণ করে স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর। ওই ব্রিজটি নির্মাণ হওয়ার পর গ্রামের মানুষ সহজেই উপজেলা সদরে যাতায়াত করে আসছে।

শনিবার (২৮ নভেম্বর) ওই ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক রেজাউল করিম ওরফে বাবু খান তার বোনের বাড়িতে যাওয়ার রাস্তা সহজ করতে খালের ওপর নির্মিত ব্রিজের রেলিং ভেঙে তার ভগ্নিপতি মঞ্জুর রহমান মজনুর সহযোগিতায় স্থানীয় চান মিয়া নামে এক ব্যক্তির জমির ওপর দিয়ে রাস্তা নির্মাণ শুরু করেন। এলাকাবাসী এর প্রতিবাদ করলে বাবু খান উল্টো তাদের ভয়ভীতি ও হুমকি ধমকি দিচ্ছেন বলে অভিযোগ করেন স্থানীয়রা।

জমির মালিক চান মিয়ার ছেলে আব্দুল হক ও ফজলুল হক জানান, তাদের না জানিয়েই বাবু খানের ভগ্নিপতি মঞ্জুর রহমান তার বাড়ি যাওয়ার রাস্তা আমাদের জমির ওপর দিয়ে বানাচ্ছেন।

আনাইতারা ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য লুৎফর রহমান জানান, ব্রিজ ভেঙে রাস্তা করার খবর পেয়ে বাধা দিতে গেলে বাবু খান তা কর্নপাত না করে কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন।

আনাইতারা ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি বেল্লাল হোসেন জানান, ব্রিজের রেলিং ভেঙে যে রাস্তা নির্মাণ করা হচ্ছে তা কোনোভাবেই ঠিক হয়নি।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত বাবু খান বলেন, গ্রামবাসীর স্বার্থে রাস্তা তৈরির কাজ চলছে। এ কাজের সঙ্গে আমি জড়িত নই।

উপজেলা প্রকৌশলী মো. আরিফুর রহমান বাংলানিউজকে জানান, এলাকা পরিদর্শন করে ব্রিজের রেলিং ভাঙার সত্যতা পাওয়া গেছে। এ বিষয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here