যদিও দেখে মনে হয় যে সাধারণ সাদা রঙের ডিমে রং করে এমন বাহারি রূপ দেওয়া হয়েছে কিন্তু বাস্তবেই এমন রঙিন ডিম পাড়ে আমেরিকার বিশেষ প্রজাতির একটি মুরগি। এমনকি, এই মুরগি একই সঙ্গে নানা রঙের ডিম পাড়ে। তাই এই বিশেষ প্রজাতির মুরগি ‘ইস্টার এগার্স’ নামেই পরিচিত।

ইস্টার এগার্স মুরগি মুলত বিখ্যাত তার নানা রঙের ডিমের জন্যই। সাদা, বাদামি, হাল্কা নীল, হালকা গোলাপী বা হালকা সবুজ রঙের ডিম পাড়ে এই ইস্টার এগার্স। নানা রঙের ডিম পেতে কোনও রকম ওষুধ খাওয়ানোর প্রয়োজন হয় না এদের।

ইস্টার এগার্স ছাড়াও এমন রঙিন ডিম পাড়ে আরও বেশ কয়েকটি প্রজাতির মুরগি। এর মধ্যে রয়েছে চিলির শঙ্কর প্রজাতির অ্যারোকানাস মুরগি, ব্রিটেনের ক্রিম লেগবার মুরগি বা ফ্রান্সের মারানস প্রজাতির মুরগি।

অ্যারোকানাস প্রজাতির মুরগির ডিমের রং হাল্কা নীচ বা আকাশি। এই মুরগির কানের ঠিক দুই পাশে অদ্ভুত ধরনের পালক রয়েছে যা এদের আরও আকর্ষণীয় করে তুলেছে।

এছাড়াও, প্লাইমাউথ রক, লেগহর্ন, ক্যাম্বার্স প্রজাতির মুরগির মিলনে সৃষ্টি হয় ক্রিম লেগবার প্রজাতির মুরগি। এই মুরগি হালকা নীল বা ফিকে সবুজ রঙের ডিম পাড়ে। ফ্রান্সের মারানস প্রজাতির মুরগির ডিমের রং গাঢ় বাদামি বা লালচে বাদামি। এই সব বাহারি রঙের ডিম দেখলে ইস্টারের কথাই মনে পড়ে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here