ছাত্রলীগের অভিভাবক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশমতো দেশের উন্নয়নে সহযোগী সংগঠন হিসেবে কাজ করবে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ। কোনো ধরনের চাঁদাবাজি টেন্ডারবাজিতে ছাত্রলীগের কেউ জড়িত থাকলে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে ঘোষণা দিয়েছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের ছাত্রসংগঠন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের নতুন নেতৃত্ব।

রবিবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যানটিনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে একথা জানান সদ্য দায়িত্ব নেওয়া ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আল নাহিয়ান খান জয়। আগামীকাল সোমবার (১৬ সেপ্টেম্বর) সকাল ১১টায় বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুলেল শ্রদ্ধা জানিয়ে দায়িত্ব গ্রহণ করবেন বলেও তারা জানান।

তিনি বলেন, ছাত্রলীগের কারও বিরুদ্ধে যদি চাঁদাবাজি বা টেন্ডারবাজির অভিযোগের প্রমাণ পেলে এবং তারা যদি ছাত্রলীগের সুনাম নষ্ট করে তাহলে সঙ্গে সঙ্গেই তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

নাহিয়ান বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে ছাত্রলীগকে পরিচালিত করব। তিনি যেভাবে বলবেন, ঠিক সেভাবেই ছাত্রলীগ চলবে। কোনো টেন্ডারবাজ বা চাঁদাবাজের বিরুদ্ধে কোনো প্রমাণ পেলে সঙ্গে সঙ্গেই ব্যবস্থা গ্রহণ করব।’

ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্য বলেন, ‘আমাদের সামনে সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ হচ্ছে আগামী ১০ মাসের মধ্যে সবগুলো কমিটি গঠন করে একটি সুন্দর সম্মেলন উপহার দেওয়া। ছাত্রলীগকে নিয়ে যাতে সাংবাদিকরা কোনো নেতিবাচক প্রশ্ন করতে না পারেন, আমরা সেই পর্যায়ে ছাত্রলীগকে নিয়ে যাব। এটা বাস্তবায়ন করতে পারলে আমরা খুশি থাকব।’

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here