বয়স বাড়ার সাথে সাথে নিয়মিত জিম এবং স্বাস্থ্যকর খাবার খাওয়ার পরেও হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি পুরোপুরি এড়ানো যায় না। তবে সাম্প্রতিক একটি গবেষণার গবেষকরা জানিয়েছেন হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকির সঙ্গে রক্তের গ্রুপের সম্পর্ক রয়েছে। যাদের শরীরে ও গ্রুপের রক্ত রয়েছে- তাদের হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি কম থাকে।

প্রতি বছর বিশ্বের প্রতিটি দেশে বিভিন্ন বয়সের প্রচুর মানুষ হৃদরোগে আক্রান্ত হন। এর জন্য অতিরিক্ত গরম, চর্বিসহ নানা ইস্যুকে দায়ী করা হয়।

নেদারল্যান্ডের ইউনিভার্সিটি অব মেডিকেল সেন্টার গ্রোনিনজেন এর একটি রিসার্চে জানা গেছে ও গ্রুপের রক্ত যাদের, অন্যদের চাইতে তাদের হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি কম। ১৩০০০০০ জনের ওপরে করা এই গবেষণায় দেখা গেছে এ, বি এবং এবি রক্তের গ্রুপের সদস্যরা ও গ্রুপের সদস্যদের চাইতে ৯% বেশি ঝুঁকিতে আছেন।

ও গ্রুপের সদস্যদের চাইতে অন্যদের রক্ত জমাট বাঁধায় সহায়তাকারী প্রোটিনের পরিমাণ বেশি থাকে। রক্ত জমাট বেঁধে আর্টারি বন্ধ হয়ে যাওয়াই হার্ট অ্যাটাকের মূল একটি কারণ। এছাড়াও এ, বি এবং এবি রক্তের গ্রুপের সদস্যদের অধিক কোলেস্টেরল এবং ইনফ্ল্যামেশনের সমস্যাও থাকে বলে জানিয়েছেন গবেষকরা।

ঝুঁকি কম বলে ও গ্রুপের সদস্যরা কিন্তু ইচ্ছে মতো খাওয়া শুরু করলে চলবে না। আবার ঝুঁকি বেশি বলে এ, বি এবং এবি রক্তের গ্রুপের সদস্যদের দুশ্চিন্তা শুরু করলেও চলবে না। কারণ অতিরিক্ত দুশ্চিন্তাও কিন্তু হৃদপিণ্ডের জন্য ক্ষতিকর। সঠিক খাদ্যাভ্যাস, ওজন, বিশ্রাম এবং নিয়মিত ব্যায়ামের মাধ্যমে হৃদপিণ্ড সুস্থ রাখা সম্ভব।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here