কলেজছাত্র হত্যায় চারজনের যাবজ্জীবন

কুষ্টিয়া মডেল থানার কলেজছাত্র হত্যা মামলায় চারজনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও প্রত্যেকের ৫০ হাজার টাকা জরিমানার আদেশ দিয়েছেন আদালত।

রোববার সকাল সাড়ে ১১টায় কুষ্টিয়া নারী ও শিশু নির্যাতন দমন বিশেষ আদালতের বিচারক মুন্সী মো: মশিয়ার রহমান আসামিদের উপস্থিতিতে এই রায় ঘোষণা করেন।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন সদর উপজেলার চৌড়হাস আদর্শপাড়া গ্রামের রাকিবুল ইসলাম (২৫), এরশাদ নগর আশ্রয়ণ প্রকল্পের বাসিন্দা সুজন (২২), পূর্ব মজমপুরের শাহরিয়ার নাইম (২৪) ও চৌড়হাস ফুলতালা এলাকার পিয়াস (২৫)। অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় রনি ও ফয়সাল নামের দুজনকে খালাস দিয়েছেন আদালত।

আদালত সূত্র জানায়, ২০১৬ সালের ১৮ সেপ্টেম্বর কুষ্টিয়া সরকারি কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির বিজ্ঞান বিভাগের ছাত্র পলাশ মোটরসাইকেলে করে পিটিআই সড়ক দিয়ে যাচ্ছিলেন। এ সময় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে আসামিরা পথরোধ করে ধারালো অস্ত্র দিয়ে তাঁকে জখম করে। গুরুতর আহত অবস্থায় পলাশকে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে স্থানীয়রা। চিকিৎসাধীন অবস্থায় পরের দিন তাঁর মৃত্যু হয়।

এ ঘটনায় নিহত পলাশের মা সেলিনা খাতুন ছয়জনের নাম উল্লেখ করে কুষ্টিয়া মডেল থানায় হত্যা মামলা করেন। মামলাটি তদন্ত শেষে ২০১৭ সালের ৬ জুন আদালতে অভিযোগপত্র দেয় পুলিশ।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here