ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপনে আমিরাতের চালাকি, ত্রাণ নেবে না ফিলিস্তিন

ইসরায়েলকে পরোক্ষভাবে সমর্থন দেয়ায় আরব আমিরাতের পাঠানো সহায়তা গ্রহণ করতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে ফিলিস্তিন। দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় সূত্রে এই খবর দিয়েছে আলজাজিরা।

ফিলিস্তিনিদের সঙ্গে সমন্বয় না করে পাঠানো আরব আমিরাতের এসব চিকিৎসা সামগ্রী গ্রহণ করা হয়নি বলে বৃহস্পতিবার ফিলিস্তিনের স্বাস্থ্যমন্ত্রী মাই কাইলা জানান।

এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, আরব আমিরাত চিকিৎসা সহায়তা পাঠাতে আমাদের সঙ্গে সমন্বয় করেনি। আমরা একটি স্বাধীন সার্বভৌমত্ব রাষ্ট্র। তাদের উচিত ছিল আগে আমাদের সঙ্গে সমন্বয় করা।

মূলত ইসরায়েলের তেলআবিবের বেন গুরিওন বিমানবন্দর ব্যবহার করে এই সহায়তা পাঠানোয় এই প্রতিক্রিয়া জানায় ফিলিস্তিনি কর্তৃপক্ষ।

জানা যায়, মঙ্গলবার আমিরাতের একটি ফ্লাইট ফিলিস্তিনিদের জন্য চিকিৎসা সহায়তার নিয়ে ইসরায়েলি বিমানবন্দরটিতে নামে। এটি ছিল আমিরাতের রাষ্ট্রীয় বিমান সংস্থা ইতিহাদ এয়ারওয়েজের ফ্লাইট।

ইতিহাদও নিশ্চিত করে ফ্লাইটটি করে করোনা পরিস্থিতিতে ফিলিস্তিনিদের জন্য সহায়তা পাঠানো হয়েছে। এ ছাড়া ইসরায়েলি সাংবাদিক ইতে ব্লুমেন্তাল টুইটারে ফ্লাইটটির দুটি ছবি দিয়ে ক্যাপশনে লিখেন, ইসরায়েলের মাধ্যমে ফিলিস্তিনিদের প্রতি আবুধাবির ভালোবাসা।

আরব আমিরাত ও ইহুদি রাষ্ট্র ইসরায়েলের মধ্যে এটিই ছিল প্রথম বেসামরিক বিমান যোগাযোগের ঘটনা। ইসরায়লের সঙ্গে আরব আমিরাতের গোপন যোগাযোগ পুরোনো। তবে ফিলিস্তিনিদের প্রতি সহায়তা পাঠানোর নামে ইসরায়েলের সঙ্গে প্রকাশ্যে সম্পর্ক স্থাপনে ইঙ্গিত দিল আরব দেশটি।

এদিকে যুক্তরাষ্ট্রের জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্যানুসারে জানা যায়, ইসরায়েলে এখন পর্যন্ত ১৬ হাজার ৬৭০ জন মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে মারা গেছেন ২৭৯ জন। অন্যদিকে ফিলিস্তিনে আক্রান্ত হয়েছেন ৪২৩ জন, এর মধ্যে মারা গেছেন মাত্র দুই জন।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here